Saturday, March 28, 2015

চীনা কোটিপতি জ্যাক মা বললেনঃ তুমি গরীব কারণ এটা তোমার কর্মফল

পৃথিবীতে প্রত্যেক মানুষ ধনকুবের হয়ে জন্মগ্রহণ করেননি। প্রত্যেক মানুষকেই তার নির্দিষ্ট পরিশ্রম করেই সফল হতে হয়েছে, নিজেকে তৈরি  এবং প্রমাণ করতে হয়েছে। ঠিক আপনার বেলাতেও এর বেতিক্রম নয়। সঠিক পরিশ্রম এনে দিতে পারে যে কার সফলতা। জনপ্রিয় ট্রেডিং সাইট আলিবাবা ডট চম এর কর্ণধার এবং চীনা কোটিপতি জ্যাক মা নিজের অভিজ্ঞতা থেকে যুব সমাজকে জীবনে উন্নতি করতে করনীয় নিয়ে কিছু পরামর্শ দিয়েছেন।
জ্যাক মা বলেন "আমি আজ যেখানে এক সময় অ্যাই অবস্থানে ছিলাম না। আমি যখন আলিবাবা নিয়ে ভাবতে থাকি তখন চীনের ইন্টারনেট দুনিয়া এতটা প্রসারিত চিল না। আমাকে স্রোতের বিপরীতে ভাবতে হয়েছে কিছু একটা করার জন্য। আমি নিজেই সিধান্ত নি যে আলিবাবা প্রতিষ্ঠাতা করবো। আমাকে আমার ফামিল্য মেম্বেরস এবং বন্ধুবান্ধবদের সাথে বসতে হয়েছে। সবার সাথে আলোচনা করতে হয়েছে। আমি ২৫ জন বন্ধুকে আমার বাসায় দাওয়াত দিলাম। তাদেরকে আমার পরিকল্পনার কথা জানালাম। তাদের মধ্যে ২৪  জন বন্ধু আমাকে বলেছিল তুমি ভুল করেছ। তোমার এভাবে চীনটাই করা ভুল যেখানে চীনে ইন্টারনেট ব্যবহার করার সুযোগ নেই বেশীরভাগ  মানুষের যেখানে তুমি এই সেচতর নিয়ে কা করবে
জ্যাক মা বলেন আমি হতাশ  ছিলাম না, যেখানে আমার ২৫ জন বন্ধুকে আমার বাসাতে দাওয়াত দিলাম। তাদের কে আমার পরিকল্পনার কথা বললাম এবং তাদের মধ্যে ২৫ জনই বলল জাঁক মা তুমি ভুল করতেছ। তোমার এভাবে চিন্তা  করাই ভুল যেখানে চীনে ইন্টারনেট ব্যবহারের সুযোগ নেই বেশীরভাগ মানুষের সেখানে তুমি এই সেচতর নিয়ে কাজ করবে এবং ভবিষ্যৎ গরবে এমন চিন্তা করতেই পারোনা। সবার মধ্যে আমার এক ফ্রেন্ড আমাকে বলে " তুমি যা করতে চাও মন থেকে তাই করো, চেষ্টা করে দেখো লক্ষ্য ঠিক থাকলে সাফল্য আসবেই"। এখন প্রাই আমার সেই  বন্ধুর কথা মনে পরে এবং তার সাথে এখনো আমার আগের মতই যোগাযোগ আছে।
জ্যাক মা বলেন আমি হতাশ হইনি, যেখানে আমার ২৫ জন বন্ধুর থেকে ২৪ জন আমাকে নিয়ে কাজ করতে না করে সেখানে আমি আমার লক্ষ্য নিয়েই এগিয়া যাই। আমি আমার লখে স্থির থাকি। আজ আলিবাবা আমাকে এই স্থানে নিয়ে আসেনি আমি আলিবাবাকে এই স্থানে নিয়ে এসেছি। আপনাকে কেউই হাত ধরিয়ে দিবেনা কিছু আপনার হাতে ধরে নেয়া জানতে হবে করতে হবে চেষ্টা। নিজের যুবক সময় কাজ করার সময়কে প্রকৃত কাজে লাগাতে হবে।
জ্যাক মা যুব সমাজের জন্য যারা নিজেরা কিছু একটা করে দেখাতে চান তাদের জন্য কয়েকটি উক্তি করেন। তিনি বলেন তোমাকে ধনী হতে হলে অবশ্যই এসব মনে রাখতে হবে, তবেই তুমি এগিয়ে যাবে নিজ উদ্যমে। নিচে এসব উক্তি তুলে ধরা হয়েছে:
  • আপনার দরিদ্র হয়ে জন্মানোটা দোষের না কিন্তু দরিদ্র হয়ে থাকাটাই দোষের।
  • আপনি যদি একটি দরিদ্র ঘরে জন্ম নিয়ে নিজের ৩৫ বছর বয়সেও সেই দরিদ্রই থাকেন তবে দরিদ্র হয়ে থাকাটা আপনার কপালের দোষ নয়, আপনি এটি প্রত্যাশা করেন। কারন আপনি আপনার যুবক বয়সকে কোন কাজে লাগাতে পারেন নি, আপনি সম্পূর্ণ ভাবে সময়টা নষ্ট করে দিয়েছেন।
  • জীবনে অনেক উপরে উঠতে হলে ২৫ বছর থেকেই শুরু করুন, নিজে পরিকল্পনা করুন, তাই করুন যা আপনি উপভোগ করতে জানেন। 
  • এগিয়ে যাও তা না হলে ঘরে ফিরে যাও।
  • আপনি গরীব কারন আপনার দূরদর্শিতার অভাব।
  • আপনি দরিদ্র কারন আপনি আপনার ভীরুতাকে জয় করতে পারেন নি।
  • আপনি গরীব কারন আপনি আপনার সর্বচ্চো ক্ষমতা, ব্যবহার করতে পারেন নি।
  • আপনি দরিদ্র তাই সবাই আফসোস করবে কেওই আপনাকে সচ্ছল বানিয়ে দিবেনা।
  • যখন আপনার বাবা মায়ের চিকিৎসা ব্যয় আপনি মিটাতে পারবেন না কেউই আপনাকে তা দিবেন না।
  • আপনি নিজের ৩৫ বছর বয়সেও যখন কোন উন্নতি করতে পারবেন না সবাই আপনাকে উপহাস ঠিকি করবে কিন্তু কেউই আপনাকে হাত ধরে এগিয়ে নিয়ে যাবেনা।
নিজের জন্য নিজেকেই এগিয়ে আসতে হবে। চিন্তা করতে হবে, ভাবনার সাথে প্রয়গিক বাস্তবতার সন্নিবেসন ঘটাতে হবে। জ্যাক মা আরো বলেন, অনেকেই হতাশ হয়ে যায়, কেউ যদি নিজের জীবনে উন্নতি করতে চায় তবে এর পেছনে মূল কারন ৪টি এগুলো হচ্ছে।
১) সুযোগের প্রতি ক্ষীণদৃষ্টি দেয়া এবং তার সৎ ব্যবহার করা।
২) সুযোগ খুঁজতে থাকা, কখন আসবে তা আপনি জানেন না তাই সচেষ্ট থাকা।
৩) যেকোনো জিনিস বুঝতে জানা, বুঝার চেষ্টা করা।
৪) হেরে যেতে না জানা, যদি হেরে যেতে হয় তবে এতো জলদি কেনো? লেগে থাকতে জানতে হবে।
উপরের সব কিছু যে অনুসরন করবে সে কখনোই দরিদ্র হয়ে থাকবেনা। আর যে নিজের ৩৫ বছর বয়সেও দরিদ্র থাকে তা হলে সে সেটা প্রত্যাশাই করে। আপনি দরিদ্র কারন আপনার কোন উচ্চাকাঙ্ক্ষা নেই।
জ্যাক মা পরিচিতি:
আলিবাবা ডট কম এর প্রতিষ্ঠাতা। 
জ্যাক মা চীন এমনকি পৃথিবীর এর মধ্যে একজন অন্যতম ধনী বাক্তি
আর একটি আর্টিকেল দেকতে পারেন নিন্মের  লিঙ্ক এ। যেখানে( Jack Ma) জ্যাক  মার ৩০ টি চাকরিতে প্রত্যাখ্যান হবার কথা বলা হয়েছে তার প্রথম দিকের জীবনে: